স্বয়ংক্রিয় গাড়ি নিয়ে নতুন চ্যালেঞ্জ

সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ায় একটি সড়কে একটি গাড়ি চলছিল। রাতে চললেও হেডলাইট জ্বলেনি। ট্রাফিক আইন অমান্য করায় ডিউটিতে থাকা পুলিশ গাড়ি থামায়। পুলিশ গাড়ির ভেতরে তাকালো। গাড়িতে চালক নেই, যাত্রীও নেই।

Cruz নামের এই স্বয়ংক্রিয় গাড়িটির নির্মাতা জেনারেল মোটরস। এ বছরের শুরুতে রাতে গাড়ি চালানোর অনুমতি দেওয়া হয়েছিল। ক্রুজ কর্তৃপক্ষ এক বিবৃতিতে বলেছে যে এটি একটি “মানব ত্রুটি” ছিল, গাড়ি দুর্ঘটনা নয়। পুলিশের সংকেত পেয়ে গাড়িটি নিজে থেকেই থামল। সংস্থাটি স্বয়ংক্রিয় গাড়ির সাথে যোগাযোগ স্থাপন বা বন্ধ করতে কী করতে হবে সে সম্পর্কে একটি ভিডিও পোস্ট করেছে।

সংস্থাটি বলেছে যে তাদের স্বয়ংক্রিয় গাড়িগুলিতে ক্যামেরা এবং মাইক্রোফোন রয়েছে, যা সহজেই পুলিশ গাড়ির লাইট এবং সাইরেন সনাক্ত করতে পারে। প্রয়োজনে দায়িত্বরত পুলিশ গাড়িতে থাকা নম্বরের মাধ্যমে কোম্পানির সংশ্লিষ্ট কর্মচারীদের সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারেন।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, স্বয়ংক্রিয় যানবাহন আইন প্রয়োগের জন্য নতুন চ্যালেঞ্জ তৈরি করেছে।

এদিকে টেসলাসহ বেশ কয়েকটি কোম্পানি স্বয়ংক্রিয় গাড়ি নিয়ে কাজ করছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *