নাক দিয়ে পেঁয়াজের রস ঢালার পর অজ্ঞান হয়ে যায় তরুণী। পরদিন মারা যায়

টাঙ্গাইলের সখীপুরে কবিরাজের ভুত তাড়ানোর চিকিৎসায় তাসলিমা আক্তার (২২) নামে এক গৃহবধূর মৃত্যু হয়েছে। মঙ্গলবার বিকেলে উপজেলার যাদবপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত তাসলিমা ওই গ্রামের মোতালেব হোসেনের মেয়ে। এ ঘটনায় থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।

তবে নিহতের পরিবারের দাবি, বেরবাড়ি গ্রামের তাহের কবিরাজের ছেলে আসমান আলী কবিরাজের ভুল চিকিৎসায় তসলিমার মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনায় পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।

নিহতের পরিবার সূত্রে জানা গেছে, বিয়ের কিছুদিন পর থেকেই মানসিক অসুস্থতায় ভুগছিলেন তসলিমা। বেরবাড়ি গ্রামের আসমান আলী নামের ওই কবিরাজের দাবি, ‘তসলিমাকে ভূত আছর করেছে বলে দাবি করেছেন।

তসলিমার স্বামী রাসেল আহমেদ বলেন, কবিরাজ ভূত তাড়াতে আমার স্ত্রীর নাকে পেঁয়াজের রস, চুনসহ বিভিন্ন গাছের রস ঢেলে দিলে সে জ্ঞান হারিয়ে ফেলে।

সখীপুর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মোহাম্মদ আলী জানান, লাশ টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট হাতে পাওয়ার পরই তার মৃত্যুর কারণ জানা যাবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *